নাটোরে বিড়ি চাওয়ায় প্রতিবন্ধী যুবককে পিটিয়ে হত্যা!

নাটোর:নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলায় মজনু শেখ (২৭) নামে এক মানসিক প্রতিবন্ধী যুবককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। নিহত মজনু বড়াইগ্রাম উপজেলার গড়মাটি এলাকার নুর আলী শেখের ছেলে। বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দিলীপ কুমার দাস হত্যার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ওসি দিলীপ কুমার দাস প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানান, রবিবার (৩০ সেপ্টেম্বর) রাত সাড়ে আটটার দিকে গড়মাটি মাঝিপাড়া তিনমাথা মোড় এলাকার এক দোকানের সামনে আজগর নামে এক ব্যক্তির কাছ থেকে বিড়ি চেয়ে খায় মানসিক প্রতিবন্ধী মজনু শেখ। কিছুক্ষণ পর পুনরায় ওই জায়গায় ফিরে এসে স্থানীয় আখের প্রামাণিকের ছেলে কোরবান প্রামাণিকের কাছে সে আবারও বিড়ি চায়। বিড়ি দিতে না চাইলে সে কোরবানের সঙ্গে ধস্তাধস্তি শুরু করে। একপর্যায়ে কোরবান উত্তেজিত হয়ে বাঁশের লাঠি দিয়ে মজনুকে কয়েকটি বাড়ি দেয়। মার খেয়ে মজনু দৌড়ে বাড়ির দিকে পালাতে গিয়ে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে একটি ডোবায় পড়ে যায়। স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে বাড়ি পৌঁছে দেয়। রাত ২টার দিকে মজনুর মৃত্যু হয়। সোমবার সকালে খবর পেয়ে বড়াইগ্রাম থানা পুলিশ মজনুর মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নাটোর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

দিলীপ কুমার দাস বলেন, ‘মজনুর মৃত্যু অস্বাভাবিক। ময়নাতদন্ত এবং পুলিশের তদন্ত শেষে মৃত্যুর সঠিক রহস্য উদ্ঘাটন করা যাবে।’

দিলীপ কুমার দাস আরও জানান, মজনুর পরিবারের দাবি, মারপিট করার কারণে মজনু শেখের মৃত্যু হয়েছে। তবে এখন পর্যন্ত কোনো মামলা দায়ের করেনি তারা। মামলা দায়ের হলে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published.