বড়াইগ্রামে গৃহবধুকে হাতের রগ ও গলাকেটে হত্যা

নাটোর অফিস ॥
নাটোরের বড়াইগ্রামে আট মাসের অন্তঃসত্ত্বা শাহিনুর বেগম (৩৪) নামে এক গৃহবধুকে গলা ও হাতে রগ কেটে হত্যা করেছে দূর্বৃত্তরা। বুধবার রাতে উপজেলার ভবানীপুর জোলাপাড়া গ্রামে নিজ বাড়ির শয়ন কক্ষে তাকে হত্যা করা হয়েছে। শাহিনুর বেগম ওই এলাকার রাশিদুল ইসলামের স্ত্রী। বৃহস্পতিবার সকালে পুলিশ, সিআইডি ও পিবিআই টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে রহস্য উদঘাটনে অনুসন্ধানে মাঠে নেমেছে।
পুলিশ ও এলাকাবাসী সুত্রে জানা যায়, গত (যংখযভা) রাতে উপজেলার ভবানীপুর গ্রামের ঐতিহ্যবাহি গ্রামীণ সাংস্কৃতিক মাদারের গান চলছিল। নিহতের দুই সন্তান শাশুড়ি সহ পরিবারের সকলেই গানের অনুষ্ঠানে থাকায় এক বছরের শিশু সন্তান নিয়ে ফাঁকা বাড়ীর নিজ ঘরেই ঘুমিয়ে ছিলেন শাহানুুর। অনুষ্ঠান শেষে বাড়িতে ফিরে নিহতের শিশুকন্যা তার মায়ের রক্তাক্ত লাশ দেখে চিৎকার করে ওঠে। পরিবারের অন্য সদস্য সহ এলাকাবাসী এগিয়ে এসে শাহিনার রক্তাক্ত মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। নিহতের স্বামী রাশেদ কাজের সন্ধানে এলাকার বাইরে ছিলেন বলে জানায় পরিবারের সদস্যরা।
এদিকে ঘটনার খবর পেয়ে তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন বড়াইগ্রাম সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার খায়রুল ইসলাম, বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ারুল ইসলাম, ওয়ালিয়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ফারুক হোসেন তালাশসহ পুলিশের অন্য কর্মকর্তারা। পরে আজ বৃহস্পতিবার সকালে সি.আই.ডি ও ও পিবিআই টিম এসে প্রাথমিক আলামত সংগ্রহের পর পুরিশ মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নাটোর সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে।
বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ারুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, পুলিশ, সিআইডি ও পিবিআই টিম রহস্য উদঘাটনে তদন্ত শুরু করেছে।

Spread the love
  • 204
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    204
    Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *