নাটোরে স্ত্রীকে হত্যার পর লাশ পুকুরে ফেলে দিলো স্বামী! 

নাটোর অফিসঃ নাটোরের লালপুর উপজেলার মোহরকয়া পশ্চিমপাড়া গ্রামে স্ত্রী স্মৃতি খাতুনকে(২২) নির্যাতনের পর হত্যা করে পুকুরে ফেলে দিয়েছে স্বামী আব্দুল জব্বার(৩৫)। স্মৃতি মোহরকয়া পিয়াদাপাড়া গ্রামের তসলু শেখের কন্যা।

আজ শুক্রবার ( ১৭ জুলাই) দুপুরে লালপুরের মোহরকয়া পশ্চিমপাড়া গ্রামে মৃত এলাহী বক্সের পুকুরে স্মৃতির মরদেহ ভেসে উঠে।

লালপুর থানার অফিসার ইনচার্জ সেলিম রেজা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

জানা যায়, বছরদুয়েক আগে মোহরকয়া পিয়াদাপাড়া গ্রামের তসলু শেখের কন্যা স্মৃতির সাথে পশ্চিমপাড়ার ইমরোজ আলীর ছেলে জব্বারের বিয়ে হয়। তাদের একটি শিশুকন্যা রয়েছে। সম্প্রতি জব্বার পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়লে তাদের মধ্যে পারিবারিক কলহের সৃষ্টি হয়। এর জেরে ঘটনাটি ঘটে থাকতে পারে। পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছেছে। অভিযুক্ত জব্বার পলাতক রয়েছে। তাকে ধরতে অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে।

লালপুর থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সেলিম রেজা জানান, লাশের শরীরে নির্যাতনের চিহ্ন রয়েছে, তদন্তের জন্য উদ্ধার শেষে মর্গে পাঠানো হচ্ছে। স্বামী পলাতক রয়েছে, তাকে আটকের জন্য জোর চেষ্টা অব্যাহত রেখেছে পুলিশ।

স্মৃতির বাবা তসলু শেখ অভিযোগ করেন, পরকীয়ার পর থেকেই জব্বার স্মৃতির সাথে দুর্ব্যাবহার করতেন। কখনো কখনো গায়ে হাতও তুলতেন। জব্বারই মেয়েকে হত্যা করে পানিতে ফেলে দিয়েছে।

Spread the love
  • 309
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    309
    Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *