নাটোরে ২৫ লাখ টাকা দেনার চাপে ব্যবসায়ীর আত্মহত্যা

নিজস্ব প্রতিবেদক, বড়াইগ্রাম, নাটোর॥ করোনা মহামারির মধ্যেও ঋণের কিস্তি পরিশোধের চাপে নাটোরের বড়াইগ্রামে পিটার কস্তা (৪০) নামে এক ব্যক্তি গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। পিটার উপজেলার জোনাইল ইউনিয়নের পারবোর্ণী গ্রামের মৃত শিমন কস্তার ছেলে।

পুলিশ ও স্থাণীয় সূত্রে জানা যায়, পিটার জোনাইল বাজার এলাকায় বিভিন্ন সুদি মহাজনের নিকট থেকে চড়া সুদে ঋণ নিয়েছিলেন। সর্বশেষ সাজেদুর রহমান নামের এক ব্যক্তির থেকে ঋণ নেয়। এরপর সাজেদুর সম্প্রতি সুদাসলে প্রায় ১০ লাখ টাকা পরিশোধের জন্য চাপ সৃষ্টি করে। এভাবে বিভিন্ন জনের নিকট থেকে তার মোট ঋণ দাঁড়ায় প্রায় ২৫ লাখ টাকা। এতো টাকা কিভাবে পরিশোধ করবেন এই নিয়ে বেশ কিছু দিন থেকে পিটার এলোমেলো আচরণ করতে থাকে। অবশেষে সোমবার ভোররাতে নিজ বাড়ির গোয়াল ঘরে গিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে।

বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা দিলিপ কুমার দাস বলেন, প্রাথমিক ভাবে জানা গেছে পিটার কস্তা ঋণের চাপে আত্মহত্যা করেছেন। এঘটনায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের হয়েছে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

Spread the love
  • 206
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    206
    Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *